মঙ্গলবার | ৪ঠা কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | হেমন্তকাল | ২০শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

শিরোনাম

গৃহবধূর ধর্ষণচেষ্টার ভিডিও সরানোর নির্দেশ : হাইকোর্ট

নোয়াখালী : নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে গৃহবধূকে বেঁধে নির্যাতন, ধর্ষণচেষ্টার ঘটনা ছড়িয়ে পড়ার ভিডিও সরিয়ে নেয়ার নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

সোমবার (৫ অক্টোবর) হাইকোর্টের বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মহিউদ্দিন শামীম এ আদেশ দেন।

সোমবার (৫ অক্টোবর) সকালে গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতনের মামলার প্রধান আসামি বাদলকে নারায়ণগঞ্জ এবং দেলোয়ারকে ঢাকা থেকে  গ্রেফতার করা হয়েছে। এছাড়া ৯ জনকে আসামি করে পর্নোগ্রাফি এবং নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেন ভুক্তভোগী নারী।

জানা যায়, ভুক্তভোগী নারীর ১৮ বছর আগে বিয়ে হয়। তার স্বামী দ্বিতীয় বিয়ে করায় কয়েক বছর আগে তিনি তার বাপের বাড়ি চলে আসেন।ওই নারীর মা নেই। বাবা দ্বিতীয় বিয়ে করে অন্যত্র থাকেন। তার এক ছেলে ও এক মেয়ে আছে। মেয়ের বিয়ে হয়ে গেছে। বাড়িতে ওই নারী ছেলে ও এক ভাইয়ের সঙ্গে থাকতেন।

গত (২ সেপ্টেম্বর) গৃহবধূর সঙ্গে দেখা করতে আসেন তার স্বামী। এ সময় স্থানীয় বখাটেরা অপরিচিত লোক দাবি করে তাকে বেঁধে রাখেন । পরে ঘরের ভেতর ঢুকে ওই গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতন চালায় । সেই ভিডিও ধারণ করা হয়। নির্যাতনকারীরা তার স্বামীকেও আটক করে নিয়ে যায়। পরে ওই নারীর ভাই ১ হাজার ৫০০ টাকা দিয়ে তাকে ছাড়িয়ে আনেন।

দোষীরা প্রভাবশালী হওয়ায় ঘটনার পর এক মাস  সময় পার হলেও ভয়ে মুখ খোলেনি কেউ। কিন্তু সম্প্রতি ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে ভিডিও ভাইরাল হওয়ার পর সামাজিক মাধ্যমে প্রতিবাদের ঝড় ফুুটে ওঠে। এ ঘটনার বিচার দাবি করেছেন সবাই।

নোয়াখালী পুলিশ সুপার মো. আলমগীর হোসেন জানান, গৃহবধূকে নির্যাতনের ঘটনায় জড়িত কাউকেই ছাড় দেয়া হবে না।

 

বিডি রয়টার্স/এইচ এ

Translate »