ফুল, চকলেট ও মাস্ক দিয়ে ইবি শিক্ষার্থীদের বরণ

ফুল, চকলেট ও মাস্ক দিয়ে ইবি শিক্ষার্থীদের বরণ bd royters

ইবি: দীর্ঘ ১৮ মাস পর ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের বন্ধ থাকা আটটি আবাসিক হল খুলে দেয়া হয়েছে। স্বাস্থ্যবিধি মেনে এক ডোজ টিকা ও শুধুমাত্র আবাসিক শিক্ষার্থীদের হলে প্রবেশ করানো হচ্ছে। ফুল, চকলেট ও মাস্ক দিয়ে আবাসিক শিক্ষার্থীদের বরণ করে নিচ্ছে হল কর্তৃপক্ষ।

শনিবার (৯ অক্টোবর) সকাল দশটা থেকে হলে আসতে শুরু করেন শিক্ষার্থীরা। হলগুলোর গেটে চেয়ার-টেবিল নিয়ে বসেছেন প্রভোস্ট ও হাউজ টিউটররা।

হলে প্রবেশের সময় চেক করা হচ্ছে শরীরের তাপমাত্রা, করানো হচ্ছে স্যানিটাইজেশন। শিক্ষার্থীদের মাঝে বিতরণ করা হচ্ছে স্বাস্থ্যবিধি সংক্রান্ত নির্দেশিকাও। শিক্ষার্থীদের কয়েকটি আবাসিক হলে গিয়ে দেখা যায়, শিক্ষার্থীরা লাইন ধরে হলে ঢুকছেন।

এ ব্যাপারে প্রভোস্ট কাউন্সিলের সভাপতি ও খালেদা জিয়া হল প্রভোস্ট অধ্যাপক ড.রেবা মন্ডল বলেন, দীর্ঘ আঠারো মাস পর ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় সিদ্ধান্ত মোতাবেক আজ আমরা হল খুলতে পেরেছি। এজন্য আমরা খুবই আনন্দিত। একডোজ টিকা ও শুধু মাত্র আবাসিক শিক্ষার্থীদের হলে উঠার জন্য অনুমতি রয়েছে।

স্বাস্থ্যবিধি ও শরীরের তাপমাত্রা মেপে আমরা মেয়েদের হলে তুলছি। হল খোলার প্রস্তুতি হিসেবে হল কতৃপক্ষ থেকে রুম পরিস্কার পরিচ্ছন্ন সহ সব ধরনের ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। শিক্ষার্থীদের সুবিধার জন্য আমাদের হল কতৃপক্ষের সব ধরণের ব্যবস্থা রয়েছে।

গণরুম খোলার ব্যাপারে তিনি বলেন, আমরা আপাতত গনরুম বন্ধ রেখেছি। গণরুমের মেয়েরা তাদের প্রয়োজনীয় জিনিস পত্র রুম থেকে নিতে পারবে কিন্তু রুমে থাকতে পারবে না। কিছুদিন পর আমরা পরিস্থিতি বিবেচনা করে সর্বসম্মতিক্রমে এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবো।

উপাচার্য অধ্যাপক ড. আবদুস সালাম হল গুলো পরিদর্শন করে বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় হল খোলার পর ফুলের বাগান পূর্ণতা পেয়েছে। এজন্য আমি খুবই আনন্দিত। আমি আশাবাদী শিক্ষার্থীরা স্ব-স্ব হল ও সকল ক্ষেত্রে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলবে। শিক্ষার্থীরা যাতে অচিরেই তাদের সব কার্যক্রম স্বাভাবিক করতে পারে সেই আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

 

বিডি রয়টার্স/এসএস



আজকের সব খবর