স্বল্প পুঁজিতে সফল উদ্যোক্তা হতে চাইলে যা করবেন

স্বল্প পুঁজিতে সফল উদ্যোক্তা হতে চাইলে যা করবেন

অর্থনীতি ডেস্ক: করোনা পরিস্থিতিতে এ পর্যন্ত অনেক মানুষ চাকরি হারিয়েছে। অনেক বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র-ছাত্রী সেশন জটের কবলে পড়েছে। নিম্নবিত্ত এবং মধ্যবিত্তরা আছে দারুণ আর্থিক সঙ্কটে। এমন অবস্থায় অনেকেই চাকরি নামক সোনার হরিণের পেছনে না দৌড়িয়ে নিজে থেকে কিছু একটা শুরু করতে চাচ্ছেন। কিন্তু কিছুতেই বুঝে উঠছেন না কী করে আর কী দিয়ে নতুন কিছু শুরু করা যায়। সকলের পকেটে কমবেশি পুঁজি থাকলেও অভাব আছে আইডিয়ার।

১। পোষা পশু-পাখি সংক্রান্ত- বাংলাদেশে বর্তমানে প্রায় প্রতিটি বাসায়ই একটি কিংবা দুটি পোষা প্রাণী রয়েছে। এই পোষা কুকুর, বিড়াল কিংবা পাখিগুলো অনেকটাই পরিবারের সদস্যদের মতো। পরিবারের সদস্যদের এসব পোষাপ্রাণী নিয়ে আবেগের কমতি নেই। আর আপনার নতুন ব্যবসাটি হতে পারে এই পোষা পশু-পাখিকেই ঘিরে। মানুষ প্রায়সই চায় তাদের পোষা প্রাণীটির ছবি তারা কেবল স্মৃতিতে ধরে না রেখে ফ্রেমে বাধাই করে রাখুক। এমন অবস্থায় সাধারণ কোনো প্রফেশনাল ফটোগ্রাফারের কাছে গেলে তাদের গুণতে হয় বড় অংকের অর্থ। তাই আগ্রহ থাকার পরেও তারা আর উৎসাহটুকু ধরে রাখতে পারে না।

২। অডিওবুক সার্ভিস- একবিংশ শতাব্দীর এই কর্মব্যস্ত যুগে বই পড়ার প্রচণ্ড ইচ্ছে থাকার পরেও সময় এবং ধৈর্য অনেকেরই হয় না। তাদের জন্য অডিওবুক সার্ভিসটি হবে আশীর্বাদস্বরূপ। একজন ভালো কন্ঠের অধিকারী চাইলেই মিক্সাপ অডিও ওয়েবসাইটে গুলোতে আপলোড করে দিতে পারেন নিজের রেকর্ড করা যে কোনো বই। বই বিক্রি হলে এখান থেকে আপলোডকারী পাবেন ৮০% অর্থ। আর এই আইডিয়া নিয়ে কেউ যদি একটি ওয়েবসাইট খুলে ফেলতে পারে, তাহলে এটি তার জন্য হতে পারে সফলতার একটি মাধ্যম। যদিও এ ব্যাপারে কপিরাইটের ব্যাপারটিও মাথায় রাখা উচিত।

বিডি রয়টার্স/এ কে জি